১০:১৮ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০২৪, ৩ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

চুয়াডাঙ্গায় যুবককে কোপানোর ঘটনায় মামলা, মূল হোতা গ্রেপ্তার

চুয়াডাঙ্গা পৌর এলাকার জ্বিনতলা মল্লিকপাড়ায় পূর্ব বিরোধের জেরে মাহফুজ (১৯) নামের এক যুবককে হত্যাচেষ্টার ঘটনায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। ঘটেছে।

আজ মঙ্গলবার (১৪ মে) বেলা ১১টার দিকে জ্বিনতলা মল্লিকপাড়ার ওল্ড,জে,এম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে ধারাল অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যাচেষ্টার ঘটনা ঘটে।

আহত মাহফুজ পৌর এলাকার জ্বিনতলা মল্লিকপাড়ার সাবদার আলীর ছেলে। এঘটনার পরই আহত মাহফুজের ভাই তামিম হাসাব বাবুল বাদি হয়ে সদর থানায় একটি হত্যা চেষ্টা মামলা দায়ের করেছেন।

এরপরই পুলিশ অভিযান চালিয়ে অভিযুক্ত হামিদুল ইসলামকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এসময় তার নিকট থেকে ধারাল অস্ত্র (চাকু) উদ্ধার করা হয়।

গ্রেপ্তার হামিদুল ইসলাম (২০) জ্বিনতলা মল্লিকপাড়ার মিজানুর রহমান ওরফে বাহারের ছেলে।

সুত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার বেলা ১১টার দিকে মাহ্ফুজসহ দুজন ওল্ড,জে,এম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে দিয়ে যাচ্ছিলেন। এসময় হামিদুল গতিরোধ করে মাহফুজকে ধারাল অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জখম করে পালিয়ে যায়।

পরে স্থানীয়দের সহযোগীতায় পরিবারের সদস্যরা তাকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসেন। পরে চিকিৎসক ক্ষতস্থানে সেলাই দিয়ে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে পুরুষ সার্জারি ওয়ার্ডে ভর্তি করেন।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা চুয়াডাঙ্গা সদর থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) মারজান আল মোনায়েম রেডিও চুয়াডাঙ্গাকে বলেন, এ ঘটনায় ভুক্তভোগীর ভাই বাদি হয়ে একটি হত্যা চেষ্টা মামলা দায়ের করেছেন। আমরা আসামীকে গ্রেপ্তার করেছি। মামলা আলামত হিসেবে ধারাল অস্ত্রটি উদ্ধার করা হয়েছে।

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

জনপ্রিয়

চুয়াডাঙ্গাসহ সারাদেশে ২২৯ প্লাটুন বিজিবি মোতায়েন

চুয়াডাঙ্গায় যুবককে কোপানোর ঘটনায় মামলা, মূল হোতা গ্রেপ্তার

প্রকাশের সময় : ১১:৫৭:৪৭ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৪ মে ২০২৪

চুয়াডাঙ্গা পৌর এলাকার জ্বিনতলা মল্লিকপাড়ায় পূর্ব বিরোধের জেরে মাহফুজ (১৯) নামের এক যুবককে হত্যাচেষ্টার ঘটনায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। ঘটেছে।

আজ মঙ্গলবার (১৪ মে) বেলা ১১টার দিকে জ্বিনতলা মল্লিকপাড়ার ওল্ড,জে,এম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে ধারাল অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যাচেষ্টার ঘটনা ঘটে।

আহত মাহফুজ পৌর এলাকার জ্বিনতলা মল্লিকপাড়ার সাবদার আলীর ছেলে। এঘটনার পরই আহত মাহফুজের ভাই তামিম হাসাব বাবুল বাদি হয়ে সদর থানায় একটি হত্যা চেষ্টা মামলা দায়ের করেছেন।

এরপরই পুলিশ অভিযান চালিয়ে অভিযুক্ত হামিদুল ইসলামকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এসময় তার নিকট থেকে ধারাল অস্ত্র (চাকু) উদ্ধার করা হয়।

গ্রেপ্তার হামিদুল ইসলাম (২০) জ্বিনতলা মল্লিকপাড়ার মিজানুর রহমান ওরফে বাহারের ছেলে।

সুত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার বেলা ১১টার দিকে মাহ্ফুজসহ দুজন ওল্ড,জে,এম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে দিয়ে যাচ্ছিলেন। এসময় হামিদুল গতিরোধ করে মাহফুজকে ধারাল অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জখম করে পালিয়ে যায়।

পরে স্থানীয়দের সহযোগীতায় পরিবারের সদস্যরা তাকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসেন। পরে চিকিৎসক ক্ষতস্থানে সেলাই দিয়ে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে পুরুষ সার্জারি ওয়ার্ডে ভর্তি করেন।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা চুয়াডাঙ্গা সদর থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) মারজান আল মোনায়েম রেডিও চুয়াডাঙ্গাকে বলেন, এ ঘটনায় ভুক্তভোগীর ভাই বাদি হয়ে একটি হত্যা চেষ্টা মামলা দায়ের করেছেন। আমরা আসামীকে গ্রেপ্তার করেছি। মামলা আলামত হিসেবে ধারাল অস্ত্রটি উদ্ধার করা হয়েছে।