০৫:৪৯ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ৩০ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

দীননাথপুরে ফুটবল প্রীতি ম্যাচে অবিবাহিতরা ১ গোলে বিজয়ী

মঙ্গলবার (১৮ জুন) বিকেলে গ্রামের তরুনদের উদ্যোগে মাখালডাঙ্গা-দীননাথপুর স্কুল মাঠ প্রাঙ্গনে এই প্রীতি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হয়।

উক্ত খেলায় অবিবাহিত দল ১-০ গোলে বিবাহিত দলকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করেন।

এর আগে প্রধান অতিথি হিসেবে প্রীতি ফুটবল ম্যাচটির শুভ উদ্বোধন করেন মাখালডাঙ্গা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান বিশ্বজিৎ সাহা। এবং খেলা শেষে প্রধান অতিথি বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার হিসেবে তুলে দেন ১১ সেট জার্সি ও একটি ট্রফি।

এছাড়া পরাজিতদের দেওয়া হয় একটি ফুটবল ও একটি রানার্সআপ ট্রফি।

প্রধান অতিথি ছিলেন তিনি বলেন ঈদের আনন্দকে ভাগাভাগি করতেই মুলত এই খেলার আয়োজন করা হয়েছে। বিনোদনের অন্যতম উৎস হিসেবে এ ফুটবল ম্যাচ থেকে দর্শকরা প্রচুর আনন্দ পেয়েছে। তিনি এই ফুটবল ম্যাচ এর আয়োজক দেরকে ধন্যবাদ জানান। ভবিষ্যতে এরকম আরও ফুটবল ম্যাচ আয়োজনের আশাবাদ ব্যক্ত করেন।
বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি জনাব বাবুল আক্তার।

এছাড়াও সেরা উদীয়মান প্লেয়ারের ট্রফি গ্রহণ করেন অবিবাহিত দলের ইমন, ট্রফি গ্রহণ করেন বিবাহিত দলের আবির হাসান আরিফ, একমাত্র গোল করে ম্যান অব দ্যা ম্যাচ ট্রফি গ্রহণ করেন অবিবাহিত দলের শফিক।

বিবাহিত দলের নেতৃত্ব দেন হেলাল আহমেদ। খেলোয়ার হিসেবে ছিলেন রাজন, আব্বাস, এম এ আজিজ, রাজু আহমেদ, আবির হাসান আরিফ, এমদাদুল হক জুয়েল, কোরবান, কুদ্দুস, বাবু, জিনারুল ইসলাম সুমন, মোশারফ করিম। অতিরিক্ত খেলোয়াড় হিসেবে ছিলেন নাজিম, ইউসুফ ও রাকিব।

অন্যদিকে অবিবাহিত দলে নেতৃত্বে ছিলেন সাকিব। সাথে খেলেন জুনায়েদ, শফিকুল, মাফুজ, সোহেল, ইমন, মাশরাফি, শামিম, ছালামিন, আঃ হালিম, মারুফ, শরিফুল। অতিরিক্ত খেলোয়াড় হিসেবে ছিলেন নয়ন, রাকিব, হাসান ও আকাশ।

বিবাহিত বনাম অবিবাহিতদের এই খেলায় রেফারি ছিলেন সবুজ হোসেন সহকারী রেফারি ছিলেন আমিরুল ও আরাফাত।

প্রীতি ম্যাচে সভাপতিত্ব করেন মাখালডাঙ্গা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ নেতা রোকনুজ্জামান রোকন।
আরো উপস্থিত ছিলেন আব্দুল জলিল, সাব্বির আহমেদ ফয়েজ, ইমরান হাসান, জসিম উদ্দিন,আমিরুল, আব্দুল হালিম, জাকির হোসাইন, নজরুল ইসলাম, সোহেল প্রমূখ।

উক্ত প্রীতি ম্যাচে ধারাভাষ্যকার হিসেবে ছিলেন রেডিও চুয়াডাঙ্গার নিজস্ব প্রতিবেদক সজিব উদ্দিন।

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

জনপ্রিয়

দীননাথপুরে ফুটবল প্রীতি ম্যাচে অবিবাহিতরা ১ গোলে বিজয়ী

প্রকাশের সময় : ১১:৫৫:৪০ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪

মঙ্গলবার (১৮ জুন) বিকেলে গ্রামের তরুনদের উদ্যোগে মাখালডাঙ্গা-দীননাথপুর স্কুল মাঠ প্রাঙ্গনে এই প্রীতি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হয়।

উক্ত খেলায় অবিবাহিত দল ১-০ গোলে বিবাহিত দলকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করেন।

এর আগে প্রধান অতিথি হিসেবে প্রীতি ফুটবল ম্যাচটির শুভ উদ্বোধন করেন মাখালডাঙ্গা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান বিশ্বজিৎ সাহা। এবং খেলা শেষে প্রধান অতিথি বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার হিসেবে তুলে দেন ১১ সেট জার্সি ও একটি ট্রফি।

এছাড়া পরাজিতদের দেওয়া হয় একটি ফুটবল ও একটি রানার্সআপ ট্রফি।

প্রধান অতিথি ছিলেন তিনি বলেন ঈদের আনন্দকে ভাগাভাগি করতেই মুলত এই খেলার আয়োজন করা হয়েছে। বিনোদনের অন্যতম উৎস হিসেবে এ ফুটবল ম্যাচ থেকে দর্শকরা প্রচুর আনন্দ পেয়েছে। তিনি এই ফুটবল ম্যাচ এর আয়োজক দেরকে ধন্যবাদ জানান। ভবিষ্যতে এরকম আরও ফুটবল ম্যাচ আয়োজনের আশাবাদ ব্যক্ত করেন।
বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি জনাব বাবুল আক্তার।

এছাড়াও সেরা উদীয়মান প্লেয়ারের ট্রফি গ্রহণ করেন অবিবাহিত দলের ইমন, ট্রফি গ্রহণ করেন বিবাহিত দলের আবির হাসান আরিফ, একমাত্র গোল করে ম্যান অব দ্যা ম্যাচ ট্রফি গ্রহণ করেন অবিবাহিত দলের শফিক।

বিবাহিত দলের নেতৃত্ব দেন হেলাল আহমেদ। খেলোয়ার হিসেবে ছিলেন রাজন, আব্বাস, এম এ আজিজ, রাজু আহমেদ, আবির হাসান আরিফ, এমদাদুল হক জুয়েল, কোরবান, কুদ্দুস, বাবু, জিনারুল ইসলাম সুমন, মোশারফ করিম। অতিরিক্ত খেলোয়াড় হিসেবে ছিলেন নাজিম, ইউসুফ ও রাকিব।

অন্যদিকে অবিবাহিত দলে নেতৃত্বে ছিলেন সাকিব। সাথে খেলেন জুনায়েদ, শফিকুল, মাফুজ, সোহেল, ইমন, মাশরাফি, শামিম, ছালামিন, আঃ হালিম, মারুফ, শরিফুল। অতিরিক্ত খেলোয়াড় হিসেবে ছিলেন নয়ন, রাকিব, হাসান ও আকাশ।

বিবাহিত বনাম অবিবাহিতদের এই খেলায় রেফারি ছিলেন সবুজ হোসেন সহকারী রেফারি ছিলেন আমিরুল ও আরাফাত।

প্রীতি ম্যাচে সভাপতিত্ব করেন মাখালডাঙ্গা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ নেতা রোকনুজ্জামান রোকন।
আরো উপস্থিত ছিলেন আব্দুল জলিল, সাব্বির আহমেদ ফয়েজ, ইমরান হাসান, জসিম উদ্দিন,আমিরুল, আব্দুল হালিম, জাকির হোসাইন, নজরুল ইসলাম, সোহেল প্রমূখ।

উক্ত প্রীতি ম্যাচে ধারাভাষ্যকার হিসেবে ছিলেন রেডিও চুয়াডাঙ্গার নিজস্ব প্রতিবেদক সজিব উদ্দিন।