০৫:০৩ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০২৪, ২ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

(ভিডিও) : জীবননগরে গ্যাস সিলিন্ডার লিকেজ হয়ে অগ্নিকাণ্ড, অল্পের জন্য প্রাণে রক্ষা

আজ শুক্রবার (১৪ জুন) রাত সাড়ে ৭ টার দিকে পৌর এলাকার ১ নং ওয়ার্ডের সুবলপুর গ্রামের ইটভাটাপাড়ার আসাদুল শেখের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

জীবননগর ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের ইনস্পেক্টর আজিজুর রহমান রেডিও চুয়াডাঙ্গাকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, গ্যাস লিকেজ থেকে এঘটনা ঘটেছে। আমাদের একটি টিম ঘটনাস্থলে পৌছে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। রান্নাঘরে সামান্য ক্ষয়ক্ষতি হলেও কোন হতাহতের ঘটনা ঘটেনি।

আসাদুল হকের স্ত্রী রেডিও চুয়াডাঙ্গাকে বলেন, আজই দোকান থেকে সিলিন্ডার নিয়ে এসেছি। বাড়িতে এসে রাখার সাথে সাথে বিস্ফোরণ হয়। সিলিন্ডারটি দুমড়ানো দেখে এটা নিতে চেয়েছিলাম না। তারা কিছু হবে না বলে জোরাজুরি করলে আমি নিয়ে আসি। এরপরই বাড়িতে এসে রান্নাঘরে রাখার সাথে সাথে এ ঘটনা ঘটলো। অল্পের জন্য আমরা প্রাণে রক্ষা পেলেও নগত টাকা ও স্বর্ণের অলংকারসহ আনুমানিক ৬ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

জীবননগর পৌর এলাকার ১ নং ওয়ার্ড কমিশনার আপিল মাহমুদ রেডিও চুয়াডাঙ্গাকে ভুক্তভোগী পরিবারের বরাত দিয়ে বলেন, খবর পেয়ে আমি ঘটনাস্থলে যায়। কিছুক্ষন পর ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হয়।

তিনি আরও বলেন, ভুক্তভোগী পরিবার আমাকে জানিয়েছেন, আজই নতুন সিলিন্ডার কিনে এনেছিলেন তারা। রাতে আগুন জ্বালানোর সময় এঘটনা ঘটে। এসময় রান্নাঘরে থানা নগত ২ লাখ ১৫ হাজার টাকা পুড়ে গেছে বলে তারা দাবি করেছেন। আমি ফায়ার সার্ভিসের কর্মীদের জিজ্ঞাসা করলে তারা আমাকে জানান, টাকা পুড়ে যাওয়ার কোন আলামত তারা পাননি।

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

জনপ্রিয়

অনির্দিষ্টকালের জন্য দেশের সব স্কুল-কলেজ বন্ধ ঘোষণা

(ভিডিও) : জীবননগরে গ্যাস সিলিন্ডার লিকেজ হয়ে অগ্নিকাণ্ড, অল্পের জন্য প্রাণে রক্ষা

প্রকাশের সময় : ০৯:৫৭:০১ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪

আজ শুক্রবার (১৪ জুন) রাত সাড়ে ৭ টার দিকে পৌর এলাকার ১ নং ওয়ার্ডের সুবলপুর গ্রামের ইটভাটাপাড়ার আসাদুল শেখের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

জীবননগর ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের ইনস্পেক্টর আজিজুর রহমান রেডিও চুয়াডাঙ্গাকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, গ্যাস লিকেজ থেকে এঘটনা ঘটেছে। আমাদের একটি টিম ঘটনাস্থলে পৌছে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। রান্নাঘরে সামান্য ক্ষয়ক্ষতি হলেও কোন হতাহতের ঘটনা ঘটেনি।

আসাদুল হকের স্ত্রী রেডিও চুয়াডাঙ্গাকে বলেন, আজই দোকান থেকে সিলিন্ডার নিয়ে এসেছি। বাড়িতে এসে রাখার সাথে সাথে বিস্ফোরণ হয়। সিলিন্ডারটি দুমড়ানো দেখে এটা নিতে চেয়েছিলাম না। তারা কিছু হবে না বলে জোরাজুরি করলে আমি নিয়ে আসি। এরপরই বাড়িতে এসে রান্নাঘরে রাখার সাথে সাথে এ ঘটনা ঘটলো। অল্পের জন্য আমরা প্রাণে রক্ষা পেলেও নগত টাকা ও স্বর্ণের অলংকারসহ আনুমানিক ৬ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

জীবননগর পৌর এলাকার ১ নং ওয়ার্ড কমিশনার আপিল মাহমুদ রেডিও চুয়াডাঙ্গাকে ভুক্তভোগী পরিবারের বরাত দিয়ে বলেন, খবর পেয়ে আমি ঘটনাস্থলে যায়। কিছুক্ষন পর ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হয়।

তিনি আরও বলেন, ভুক্তভোগী পরিবার আমাকে জানিয়েছেন, আজই নতুন সিলিন্ডার কিনে এনেছিলেন তারা। রাতে আগুন জ্বালানোর সময় এঘটনা ঘটে। এসময় রান্নাঘরে থানা নগত ২ লাখ ১৫ হাজার টাকা পুড়ে গেছে বলে তারা দাবি করেছেন। আমি ফায়ার সার্ভিসের কর্মীদের জিজ্ঞাসা করলে তারা আমাকে জানান, টাকা পুড়ে যাওয়ার কোন আলামত তারা পাননি।