০২:৫২ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০২৪, ৩ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

এমপি আনার হত্যা : এবার ঝিনাইদহের আ.লীগ নেতা বাবুর দায় স্বীকার

শুক্রবার (১৪ জুন) স্বেচ্ছায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিতে সম্মত হওয়ায় তা রেকর্ড করার আবেদন করেন তদন্ত কর্মকর্তা গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) সহকারী কমিশনার মাহফুজুর রহমান।

আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ জসিমের আদালত তার জবানবন্দি রেকর্ড করেন। এরপর তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন আদালত।

আদালতে শেরেবাংলা নগর থানার সাধারণ নিবন্ধন শাখার কর্মকর্তা পুলিশের উপ-পরিদর্শক জালাল উদ্দিন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এখন পর্যন্ত এ মামলায় গ্রেপ্তার শিমুল-তানভীর-শিলাস্তিসহ পাঁচজনের মধ্যে চারজনই দায় স্বীকার করে জবানবন্দি দিলেন। অপর আসামি ঝিনাইদহ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাইদুল করিম মিন্টু আট দিনের রিমান্ডে রয়েছেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রগুলো বলছে, মামলার অন্যতম আসামি খুলনা অঞ্চলের এক সময়ের দুর্ধর্ষ চরমপন্থী সন্ত্রাসী শিমুল ভূঁইয়ার ১৬৪ ধারার জবানবন্দিতে কাজী কামালের নাম উঠে আসে। আসামির সঙ্গে শিমুলের হোয়াটসঅ্যাপে যোগাযোগ হয়। আনোয়ারুল আজীমকে খুন করার পর তাঁর পোশাক খুলে ছবি তোলে খুনিরা। সেই ছবি হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে পাঠানো হয় কাজী কামালের ফোনে।

প্রসঙ্গত, গত ১২ মে চুয়াডাঙ্গার দর্শনা সীমান্ত দিয়ে কলকাতায় যান এমপি আনার। প্রথম দিন তিনি তার বন্ধু গোপালের বাসায় থাকেন। পরদিন ১৩ মে কৌশলে এমপি আনারকে নিউ টাউনের সেই ফ্ল্যাটে ডেকে নিয়ে যায় হত্যাকারীর। পরে ১৮ মে ভারতে নিখোঁজের জিডি করা হয়। ২২ মে ভারতের কলকাতার নিউটাউনের সঞ্জীবা গার্ডেনের একটি ফ্ল্যাটে এমপি আনারকে খুন করা হয়েছে বলে জানায় কলকাতার সিআইডি।

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

জনপ্রিয়

চুয়াডাঙ্গাসহ সারাদেশে ২২৯ প্লাটুন বিজিবি মোতায়েন

এমপি আনার হত্যা : এবার ঝিনাইদহের আ.লীগ নেতা বাবুর দায় স্বীকার

প্রকাশের সময় : ০৭:০৩:৪৪ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪

শুক্রবার (১৪ জুন) স্বেচ্ছায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিতে সম্মত হওয়ায় তা রেকর্ড করার আবেদন করেন তদন্ত কর্মকর্তা গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) সহকারী কমিশনার মাহফুজুর রহমান।

আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ জসিমের আদালত তার জবানবন্দি রেকর্ড করেন। এরপর তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন আদালত।

আদালতে শেরেবাংলা নগর থানার সাধারণ নিবন্ধন শাখার কর্মকর্তা পুলিশের উপ-পরিদর্শক জালাল উদ্দিন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এখন পর্যন্ত এ মামলায় গ্রেপ্তার শিমুল-তানভীর-শিলাস্তিসহ পাঁচজনের মধ্যে চারজনই দায় স্বীকার করে জবানবন্দি দিলেন। অপর আসামি ঝিনাইদহ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাইদুল করিম মিন্টু আট দিনের রিমান্ডে রয়েছেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রগুলো বলছে, মামলার অন্যতম আসামি খুলনা অঞ্চলের এক সময়ের দুর্ধর্ষ চরমপন্থী সন্ত্রাসী শিমুল ভূঁইয়ার ১৬৪ ধারার জবানবন্দিতে কাজী কামালের নাম উঠে আসে। আসামির সঙ্গে শিমুলের হোয়াটসঅ্যাপে যোগাযোগ হয়। আনোয়ারুল আজীমকে খুন করার পর তাঁর পোশাক খুলে ছবি তোলে খুনিরা। সেই ছবি হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে পাঠানো হয় কাজী কামালের ফোনে।

প্রসঙ্গত, গত ১২ মে চুয়াডাঙ্গার দর্শনা সীমান্ত দিয়ে কলকাতায় যান এমপি আনার। প্রথম দিন তিনি তার বন্ধু গোপালের বাসায় থাকেন। পরদিন ১৩ মে কৌশলে এমপি আনারকে নিউ টাউনের সেই ফ্ল্যাটে ডেকে নিয়ে যায় হত্যাকারীর। পরে ১৮ মে ভারতে নিখোঁজের জিডি করা হয়। ২২ মে ভারতের কলকাতার নিউটাউনের সঞ্জীবা গার্ডেনের একটি ফ্ল্যাটে এমপি আনারকে খুন করা হয়েছে বলে জানায় কলকাতার সিআইডি।